ঢাকা মঙ্গলবার, ৩১ জানুয়ারী ২০২৩, ১৮ মাঘ ১৪২৯

আজ অ-১৭ সাফে সেমিতে মুখোমুখি বাংলাদেশ-ভারত

এম.এ রনী | প্রকাশিত: ১২ সেপ্টেম্বর ২০২২ ১১:০২; আপডেট: ১২ সেপ্টেম্বর ২০২২ ১৪:২৬

 

এলিট একাডেমীর সুফল ধীরে ধীরে পেতে শুরু করেছে বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন। গত কয়েকটি আন্তর্জাতিক টুর্নামেন্টে বাংলাদেশের বয়স ভিত্তিক ফুটবল দলগুলো ধারাবাহিক উন্নতি চোখে পরার মতো। বাংলাদেশের বয়স ভিত্তিক দলগুলোর সিংহভাগ খেলোয়ারই এলিট একাডেমী থেকে নেয়া। দীর্ঘ দিন একসাথে ক্যাম্পিং এর সাথে দীর্ঘ মেয়াদী নির্দিষ্ট পরিকল্পনার মাধ্যমে দেশীয় বাছাইকৃত কোচের তত্ত্বাবধানে ছেলেরা প্রাকটিস করার কারণে অনেকাংশে তাদের মধ্যে একটি ভালো টিম কম্বিনেশন তৈরী হয়েছে। গত মাসে ভারতে অনুষ্ঠিত হয়ে যাওয়া অনুর্ধ্ব-২০ টুর্নামেন্টেও ছেলেদের মাঠে খেলা দর্শক মনে জায়গা করে নিয়েছিল।

সেই পথ ধরেই অনুর্ধ্ব-১৭ দলটি শ্রিলংকায় সাফ ব্যবস্থাপনায় ৫ সেপ্টেম্বর থেকে ১৪ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত “সাফ অনূর্ধ্ব-১৭ চ্যাম্পিয়নশীপ-২০২২” চলমান। গ্রূপ পর্যায়  শ্রীলংকা এবং মালদ্বীপকে গোল বন্যায় ভাসিয়ে যোগ্য দল হিসেবে সেমিতে নাম লেখায় বাংলাদেশের তরুণরা  

আজ শ্রীলংকার সময় বিকাল ৪:০০টায় কলম্বোর রেসকোর্স ইন্টারন্যাশনাল স্টেডিয়ামে মুখোমুখি বাংলাদেশ ভারত। 

সেমিফাইনালকে সামনে রেখে বাংলাদেশ গত কাল অনুশীলনে ছিল খুবই সিরিয়াস। অনুশীলনে কোচ খেলোয়ারদের নিয়ে বিভিন্ন ট্রাকটিস এবং সেটপিস নেয় কাজ করেছে। ভারতের বিপক্ষে খেলোয়াররা ভালো খেলা উপহার দিয়ে ফাইনালে চ্যাম্পিয়নশীপের উৎসব করার জন্য খুবই আশাবাদী।

অধিনায়ক মিরাজুল জানান, ইনশাহআল্লাহ আমরা আজকে দেশবাসীকে জয়ের উপহার দিয়েই ভারতের বিপক্ষে মাঠে নামবো। আমাদের জন্য দোয়া করবেন, ভারতকে হারিয়ে আমরা ফাইনালে উঠতে পারি। খেলোয়াররা সবাই ফিট আছে, আমরা আমাদের স্বাভাবিক খেলাই খেলবো।  

আজকের ম্যাচ নিয়ে দলের সহকারী কোচ আবুল হোসেন সংবাদ প্রতিদিন-কে বলেন, আমরা খু্বই আশাবাদী। দলে কোন ইনজুরি ও কার্ড সমস্যা নেই। ছেলেরা যদি তাদের নিয়ে পরিকল্পনা মতো খেলতে পারে ইনশাহ্আল্লাহ ভারতকে হারাতে পারবো। যেহেতু আমরা প্রতিটি ম্যাচ নিয়ে আলাদা পরিকল্পনা নিয়ে মাঠে নামি, সেহেতু প্রতিটি ম্যাচ নিয়ে আমরা আলাদা আলাদা চিন্তভাবনা নিয়ে কাজ করেছি। আমাদের প্রথম লক্ষ্য ছিল টুর্ণামেন্টে ভালো খেলোয়ার উপহার দিয়ে সেমিতে নাম লেখাবো, প্রাথমিক ভাবে আমরা সফল এখন আমাদের আগামীর লক্ষ্যই আজকের ম্যাচ নিয়ে। আমরা ভালো খেলা্ উপহার দিয়েই ইনশাহ্আল্লাহ ফাইনালে যাবো। 

তিনি আরো বলেন, গ্রুপ পর্যায়ের ম্যাচগুলোতে আমাদের স্কোরিং সমস্যাগুলো অনেকাংশে কাটাতে সক্ষম হয়েছি, আশারাখি ছেলেরা মাঠে তাদের স্বাভাবিক খেলা উপহার দিতে পারলে আমরা ভারতে সাথে জয় নিয়ে মাঠ ছাড়বো।

 




আপনার মূল্যবান মতামত দিন:


এই বিভাগের জনপ্রিয় খবর
Top