ঢাকা বৃহঃস্পতিবার, ৮ ডিসেম্বর ২০২২, ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৯

টানা ৩৬ ম্যাচ পর আর্জেন্টিনাকে পরাজয়ের স্বাদ দিলো সৌদি আরব

পাঁচ মিনিটের ঝড়ে আর্জেন্টিনাকে উড়িয়ে দিলো সৌদি আরব

এম. এ রনী | প্রকাশিত: ২২ নভেম্বর ২০২২ ১৮:৩০; আপডেট: ২২ নভেম্বর ২০২২ ১৮:৫৯

কাতার বিশ্বকাপের প্রথম অঘটনের স্বীকার হলো বিশ্বকাপ চ্যাম্পিয়নের অন্যতম দাবীদার আর্জেন্টিনা।  টানা ৩৬ ম্যাচ অপরাজিত থেকে বিশ্বকাপ খেলতে এসেছিল আর্জেন্টিনা। এক প্রকার অজেয় হয়ে গিয়েছিল মনে হচ্ছিল আর্জেন্টিনাকে। কিন্তু হটাৎ করে আকাশ থেকে ছিটকে মাটিতে নামিয়ে আনলো। এশিয়ার ফুটবল পরাশক্তি সৌদি আরব। বিশ্বকাপের নিজেদের প্রথম ম্যাচে আর্জেন্টিনা সৌদি আরবের কাছে ২-১ গোলে পরাজয় দিয়ে  বিশ্বকাপ মিশন শুরু।

এবারের কাতার বিশ্বকাপের অন্যতম ফেবারিটের তকমা নিয়ে বিশ্বমঞ্চে এসেছিল আর্জেন্টিনা। কিন্তু তাদের চ্যাম্পিয়ন মিশনের প্রথমেই হোঁচট খেতে হলো তুলনা মূলক দূর্বল সৌদি আরবের সাথে।

মেসির রেকর্ড গড়া গোলের পর সৌদি আরবের চমক। ৩৬ ম্যাচ পর প্রথম হারের তেতো স্বাদ পেল লিওনেল স্কালোনির দল। হারতেই যেন ভুলে গিয়েছিল আর্জেন্টিনা। অজেয় দলকে রেকর্ড গড়া গোলে এগিয়ে নিলেন লিওনেল মেসি।

প্রথমার্ধে তাদের তিনটি গোলের চেষ্টা নষ্ট হলো অফসাইডের ফাঁদে পড়ে। দ্বিতীয়ার্ধে চমক দেখাল সৌদি আরব। ৫ মিনিটের মধ্যে দুই গোল করে দুইবারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়নদের স্তব্ধ করে দিল এশিয়ার দেশটি।

লুসাইল স্টেডিয়ামে মঙ্গলবার ‘সি’ গ্রুপের ম্যাচে ২-১ গোলে জিতেছে সৌদি আরব। ৩৬ ম্যাচ পর হারের তেতো স্বাদ পেল আর্জেন্টিনা। এই হারে তাদের দ্বিতীয় রাউন্ডের পথ হয়ে গেল কঠিন।

বিশ্বকাপের প্রথম ম্যাচে আজ বাংলাদেশ সময় বিকাল ৪টায় কাতারের আল দায়ানের লুসেইল স্টেডিয়ামে মুখোমুখি হয় আর্জেন্টিনা এবং সৌদি আরব। গ্যালারি কানায় কানায় দর্শকে পরিপূর্ণ। এই ম্যাচ নিয়ে অনেক স্বপ্ন ছিল আর্জেন্টিনার ভক্তকুলদের। বিশেষ করে গত রাতে ইরানের বিপক্ষে ইংল্যান্ডের বড় জয় নিয়ে এই ম্যাচে অনেকেই ধরেই নিয়েছিল এটি একটি এক তরফা ম্যাচ হতে যাচ্ছে। কিন্তু সকল জল্পনা-কল্পনাকে উড়িয়ে দিয়ে কাতার বিশ্বকাপের প্রথম অঘটনের জন্ম দিলো এশিয়ার অন্যতম পরাশক্তি সৌদি আরব।

ম্যাচের প্রথম ৮মিনিটে কর্নার পায় আর্জেন্টিনা। কর্নারের পর ডি-বক্সের মধ্যে ফাউল করে সৌদি আরবের মোহাম্মদ ক্যানো। রেফারির ভিএআর সিদ্ধান্তে পেনাল্টি পায় আর্জেন্টিনা। পেনাল্টি থেকে মেসি গোল করে আর্জেন্টিনাকে এগিয়ে দেয়। মেসির আলতো করে নেয়া কিকে সৌদির গোল কিপারকে বোকা বানিয়ে গোল করে ১-০ গোলে এগিয়ে যায় আলবিয়াস্তনরা।

এর পর আরো তিনটি গোল করেন আর্জেন্টিনা কিন্তু ভিএআর মাধ্যমে অফসাইড ঘোষণায় তিনটি গোলই বাতিল হয়ে যায়।

১-০ গোলে ব্যবধান নিয়ে দু’দল বিরতীতে যায়। বিরতি থেকে ফিরে সৌদি আরব যেন অগ্নিমূর্তী ধারণ করে। মাত্র পাঁচ মিনিটের গোছালো ঝড়ে আর্জেন্টিনাকে বিধ্বস্ত করে সৌদি আরব।

ম্যাচের ৪৮ মিনিটে সৌদি আরবের হয়ে সমতা ফেরান সালেহ আল শেহরি। পাঁচ মিনিট পরেই ডি-বক্সের কিছুটা বাহির থেকে অসাধারণ এক শটে গোল করেন সৌদি অধিনায়ক সালেম আল-দাওয়াসারি। দুই গোলে এগিয়ে থেকে সৌদি আরব তাদের রক্ষণভাগ জমাট করে ফেলেন। আর্জেন্টিনার একের পর আক্রমন সৌদির রক্ষনে মুখ থুবরে পড়ছিল।

ম্যাচে সৌদির গোল রক্ষক মেসিদের কাছে আজ চীনের প্রাচিরের মতো দাড়িয়ে ছিল। আর্জেন্টিনার আক্রমন যদি সৌদির রক্ষনকে ভেদ করে কিন্তু গোলরক্ষকের কাছে অসহায় পড়ে ছিল। দুর্দান্ত কয়েকটি সেভ করে আর্জেন্টিনার বিপক্ষে জয় নিশ্চিত করে সৌদি আরব মাঠ ছাড়ে।

 

 

 




আপনার মূল্যবান মতামত দিন:


এই বিভাগের জনপ্রিয় খবর
Top