ঢাকা মঙ্গলবার, ৩১ জানুয়ারী ২০২৩, ১৮ মাঘ ১৪২৯

সংসদ অধিবেশন চলবে ৯ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত

নিজস্ব প্রতিবেদক | প্রকাশিত: ৬ জানুয়ারী ২০২৩ ০২:১৪; আপডেট: ৩১ জানুয়ারী ২০২৩ ১৫:৫৯

জাতীয় সংসদের নতুন বছরে প্রথম অধিবেশন ৯ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত চলবে। বৃহস্পতিবার (৫ জানুয়ারি) বিকেল ৪টা ১০ মিনিটে স্পিকার শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে এ অধিবেশন শুরু হয়।

স্বাগত বক্তব্যে স্পিকার জানান, এ অধিবেশনটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। রাষ্ট্রপতির ভাষণ রয়েছে ও ধন্যবাদ প্রস্তাবের ওপর আলোচনা হবে। সংসদ সদস্যদের আলোচনায় সংসদ প্রাণবন্ত হয়ে উঠবে বলে আশা রাখেন স্পিকার।

অধিবেশনে সংসদ নেতা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাও উপস্থিত রয়েছেন। বিরোধী দল জাতীয় পার্টির সদস্যরা উপস্থিত থাকলেও বিএনপির সংসদ সদস্যরা পদত্যাগ করায় তারা এ অধিবেশনে নেই। স্পিকার চলতি অধিবেশনে বিএনপির সংসদ সদস্যদের পদত্যাগপত্র ও আসন শূন্য করে গেজেট প্রকাশের বিষয়টি অবহিত করেন। বছরের প্রথম অধিবেশনে সংবিধানের বিধান অনুযায়ী সংসদে ভাষণ দেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ। ৫টায় ভাষণ শেষ করেন।

এর আগে, বিকেল ৩টায় স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে কার্যউপদেষ্টা কমিটির সভা অনুষ্ঠিত হয়। 

অধিবেশন চলবে ৯ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত, এপ্রিলে হবে বিশেষ অধিবেশন

সংসদের কার্যউপদেষ্টা কমিটির সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, আগামী ৯ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত সংসদ অধিবেশন চলবে বলে সচিবালয়ের বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে। এ অধিবেশনে স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে ১০ জানুয়ারি বিশেষ আলোচনার ও সংসদের ৫০ বছর পূর্তি উপলক্ষে এপ্রিলে বিশেষ অধিবেশনের সিদ্ধান্ত হয়।

বৈঠকে একাদশ জাতীয় সংসদের ২১তম অধিবেশনের কার্যাদি নিষ্পন্নের জন্য সময় বরাদ্দ নিয়ে আলোচনা হয়। শুক্র ও শনিবার ব্যতীত ৯ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত প্রতিদিন বিকাল ৪.১৫টায় অধিবেশন শুরু হবে।  

এছাড়া জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে ১০ জানুয়ারি বিশেষ আলোচনার সিদ্ধান্ত হয়।

জাতীয় সংসদের ৫০ বছর পূর্তি উপলক্ষে এপ্রিলে বিশেষ অধিবেশন হবে। এ অধিবেশনে রাষ্ট্রপতির ভাষণ এবং ধন্যবাদ প্রস্তাবের ওপর আলোচনা অনুষ্ঠিত হবে।

এ অধিবেশনে প্রধানমন্ত্রীর জন্য ৭৩টি ও অন্যান্য মন্ত্রীর জন্য এক হাজার ৮৫৪টি প্রশ্নসহ মোট এক হাজার ৯২৭টি প্রশ্ন পাওয়া গেছে, বিধি-৭১ এ মনোযোগ আকর্ষণের নোটিশ পাওয়া গেছে ৩৪টি। বেসরকারি সদস্যদের বিলের কোনো নোটিশ পাওয়া যায়নি। পূর্বে অনিষ্পন্ন ৮টি বেসরকারি বিলের মধ্যে গত সপ্তদশ অধিবেশনে ১টি বিল উত্থাপিত হয়ে কমিটিতে পরীক্ষাধীন রয়েছে।

অধিবেশনে উত্থাপনের জন্য ৬টি সরকারি বিল ও গত অধিবেশনে অনিষ্পন্ন ১২টি বিলসহ ১৮টি বিলের মধ্যে কমিটিতে পরীক্ষাধীন ১১টি, পাসের অপেক্ষায় ১টি ও উত্থাপনের অপেক্ষায় ৬টি।

কমিটির সভাপতি স্পিকার শিরীন শারমিন চৌধুরী এ বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন। কমিটি সদস্য এবং সংসদ নেতা ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বৈঠকে অংশ নেন।

বৈঠকে কমিটির সদস্য বিরোধীদলীয় নেতা বেগম রওশন এরশাদ, আমির হোসেন আমু, শেখ ফজলুল করিম সেলিম, ওবায়দুল কাদের, রাশেদ খান মেনন, হাসানুল হক ইনু, ডেপুটি স্পিকার মো. শামসুল হক টুকু, আনিসুল হক, গোলাম মোহাম্মদ কাদের (জি এম কাদের), আনিসুল ইসলাম মাহমুদ, চিফ হুইপ নূর-ই-আলম চৌধুরী উপস্থিত ছিলেন।

সংসদ সচিবালয়ের সিনিয়র সচিব কে এম আব্দুস সালাম বৈঠক সঞ্চালনা করেন।




আপনার মূল্যবান মতামত দিন:


এই বিভাগের জনপ্রিয় খবর
Top