ঢাকা সোমবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১২ আশ্বিন ১৪২৮

আসামিদের সর্বোচ্চ সাজার আশা পরিবারের

জুলহাজ-তনয় হত্যা মামলার রায় আজ

নিজস্ব প্রতিবেদক | প্রকাশিত: ৩১ আগস্ট ২০২১ ০১:৪২; আপডেট: ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১ ১৬:৫৯

জুলহাজ ও তনয়

রাজধানীর কলাবাগানে ২০১৬ সালের ২৫ এপ্রিল জুলহাজ মান্নান ও তার বন্ধু মাহবুব তনয়কে হত্যার অভিযোগে দায়ের মামলায় চাকরিচ্যুত মেজর সৈয়দ মোহাম্মদ জিয়াউল হক ওরফে জিয়াসহ আটজনের বিরুদ্ধে রায় ঘোষণা করা হবে আজ মঙ্গলবার (৩১ আগস্ট)।

এ মামলার রায়ে আসামিদের সর্বোচ্চ সাজা নিশ্চিত করার আশা ব্যক্ত করেছে বাদীপক্ষ।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, মঙ্গলবার ঢাকার সন্ত্রাস দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক মজিবুর রহমানের আদালত মামলার রায় ঘোষণা করবেন।

এই মামলায় আসামিদের সর্বোচ্চ সাজা প্রত্যাশা করেছেন জুলহাস মান্নান এবং তনয়ের স্বজনরা। রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবীরা বলছেন, আসামিদের বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রমাণ করতে সক্ষম হয়েছেন তারা। তাই  আসামিদের সর্বোচ্চ সাজা আশা করছেন তারা।

 

আসামিপক্ষের আইনজীবী নজরুল ইসলাম বলেন, ‘রাষ্ট্রপক্ষ আসামিদের বিরুদ্ধে কোনও প্রকার অভিযোগ প্রমাণ করতে পারেনি। তাই আমরা আশা করছি, তারা খালাস পাবেন। কারণ,  স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দির ওপর ভিত্তি করে কোনও আসামিকে সাজা দেওয়া যায় না।

আমরা আশা করছি, আসামিরা খালাস পাবে।’

রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী গোলাম ছারোয়ার খান (জাকির) বলেন, ‘আমরা রাষ্ট্রপক্ষ থেকে আসামিদের বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রমাণ করতে পেরেছি। আমরা আশা করছি, আসামিদের সর্বোচ্চ সাজা মৃত্যুদণ্ড দেবেন আদালত।’

তিনি বলেন, ‘এই হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় গ্রেফতার আসামিরা আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে‌। জবানবন্দিতে পলাতক চার আসামিও এই হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত বলে স্বীকার করেছে তারা।

এছাড়া আমরা রাষ্ট্রপক্ষ প্রমাণ করতে সক্ষম হয়েছি যে, এই মামলার অন্যতম আসামি পলাতক মেজর সৈয়দ মোহাম্মদ জিয়াউল হক ওরফে জিয়াসহ আট জন আসামি রয়েছে, তারা সবাই জুলহাজ ও তনয় হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত ছিল।তাই আমরা আশা করছি, আসামিদের সর্বোচ্চ সাজা মৃত্যুদণ্ড দেবেন আদালত।’

এর আগে গত ২৩ আগস্ট আসামিপক্ষের অবশিষ্ট যুক্তিতর্ক উপস্থাপন শেষ হওয়ায় ঢাকার সন্ত্রাস দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক মজিবুর রহমানের আদালত রায়ের জন্য তারিখ ধার্য করেন।

মামলার অপর আসামিরা হচ্ছে— আকরাম হোসেন, সাব্বিরুল হক চৌধুরী, মওলানা জুনায়েদ আহম্মেদ, মোজাম্মেল হুসাইন ওরফে সায়মন, আরাফাত রহমান, শেখ আব্দুল্লাহ ও আসাদুল্লাহ। আসামিদের মধ্যে চার জন পলাতক এবং চার জন কারাগারে রয়েছে।

২০১৯ সালের ১২ মে জিয়াসহ আট জনের বিরুদ্ধে কলাবাগান থানায় দায়ের করা মামলায় আদালতে চার্জশিট দাখিল করেন তদন্ত কর্মকর্তা পুলিশের কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিটের পরিদর্শক মুহম্মদ মনিরুল ইসলাম।

উল্লেখ্য, ২০১৬ সালের ২৫ এপ্রিল রাজধানীর কলাবাগানে লেক সার্কাসের  বাড়িতে ঢুকে জুলহাজ মান্নান ও মাহবুব তনয়কে কুপিয়ে হত্যা করে দুর্বৃত্তরা।ওই ঘটনায় কলাবাগান থানায় জুলহাজের বড় ভাই মিনহাজ মান্নান ইমন হত্যা মামলা এবং সংশ্লিষ্ট থানার এসআই মোহাম্মদ শামীম অস্ত্র আইনে মামলা দায়ের করেন।




আপনার মূল্যবান মতামত দিন:


এই বিভাগের জনপ্রিয় খবর
Top