ঢাকা সোমবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১২ আশ্বিন ১৪২৮

পাংশা আওয়ামী লীগকে বিতর্কিত করেছে দুর্নীতির দায়ে বরখাস্ত হওয়া দুই ভাই

রাজবাড়ি প্রতিনিধ | প্রকাশিত: ৯ মে ২০২১ ২৩:৪২; আপডেট: ১০ মে ২০২১ ০৩:৪৪

বরখাস্ত হওয়া দুই ভাই হচ্ছেন সিদ্দিক মন্ডল ও ফরিদ হাসান ওদুদ মন্ডল।

পাংশা আওয়ামী লীগকে বিতর্কিত করেছে দুর্নীতির দায়ে বরখাস্ত হওয়া দুই ভাই। একভাই যশাই ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সিদ্দিক মন্ডল। আরেক ভাই উপজেলা চেয়ারম্যান ফরিদ হাসান ওদুদ মন্ডল। জানা গেছে, গত বছর করোনাকালে দ্ররিদ্র মানুষের জন্য সরকারী বরাদ্ধের চাল চুরি করে বরখাস্ত হন রাজবাড়ি পাংশা উপজেলার যশাই ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সিদ্দিক মন্ডল।


এবার করোনাকালে উপজেলা পরিষদের জায়গা দখল করে নিকট আত্মীয়দের বরাদ্ধ দেওয়া ও উপজেলা পরিষদের অর্থ আত্মসাত প্রমানিত হওয়ায় বরখস্ত হয়েছেন তার আরেক ভাই উপজেলা চেয়ারম্যান ফরিদ হাসান ওদুদ মন্ডল।
কেবল তাই নয় তার আরেক ভাই ইদ্রিস মন্ডলের নামে রয়েছে একাধিক বিস্ফোরক ও সন্ত্রাসী আইনের মামলা, তাদের আরেক ভাই ওয়াজেদ মন্ডল এখন আওয়ামী লীগের মনোনয়নে পাংশা পৌরসভার চেয়ারম্যান।


স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতারা জানান, তাদের পুরো পরিবারই হাইব্রিড। এক সময়ে এরা জড়িত ছিলো ওয়াকার্স পার্টির সঙ্গে। তার আগে ছিলেন চৈনিক পন্থী আন্ডারগ্রাউন্ড পার্টির সঙ্গে। আওয়ামী লীগে এসে হঠাৎ পাংশার রাজনীতিতে প্রভাবশালী হয়ে ওঠেন তারা। কোনঠাসা হয়ে পড়ে আওয়ামী লীগের ত্যাগী নেতাকর্মীরা। অভিযোগ উঠেছে , এ সময় খুন হন কৃষক নেতা নাদের মুন্সী।


আওয়ামী লীগের উপজেলা কমিটি আয়োজিত সমাবেশে হামলা করে তারা আহত করে উপজেলা কমিটির সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদককে। পাংশা আওয়ামী লীগের সাধারণ নেতাকর্মীরা পরিবারটির কাছে জিম্মি হয়ে পড়েছে।


অন্যদিকে একের পর এক দুনীতির কারনে বরখাস্ত হওয়ার দায় পড়ছে আওয়ামী লীগের ঘাড়ে। পাংশা আওয়ামী লীগের সাধারণ কর্মীদের প্রশ্ন এই পরিবারের অপকর্মের দায় নেবে কে? কারা তাদের আশ্রয় প্রশ্রয় দিচ্ছে। গায়ে গতরে আওয়ামী লীগ করলেও এদের সম্পর্ক ২০০১ সাল থেকে ২০০৬ সাল পর্যন্ত পাংশার ২৭ জন আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীর খুন ও কয়েকশ নারী ধর্ষনের মুল হোতা বিএনপি নেতা সন্ত্রাসী চাদ আলী খানের সঙ্গে।

অভিযোগ উঠেছে, সদ্য বরখাস্ত হওয়া উপজেলা চেয়ারম্যান ফরিদ হাসান ওদুদ মন্ডল লুটপাটের মাধ্যমে ইতিমধ্যে শত শত কোটি টাকার সম্পদ গড়েছেন। নিজ নামে ক্রয় করেছেন কয়েকশ কোটি টাকার ভূ-সম্পদ। এই পরিবারের লোকেরা একাধিকবার হামলা করেছে পাংশায় কর্মরত সাংবাদিকদের ওপর।


এ নিয়ে ঢাকার সাংবাদিক নেতৃবৃন্দ মানব বন্ধন করে সন্ত্রাসীদের বিচার চেয়েছে তারপরও রহস্যজনকভাবে নীরব রাজবাড়ির পুলিশ প্রশাসন। উপজেলা আওয়ামী লীগ নেতাদের ওপর হামলার ঘটনায় মামলা হওয়ার পর কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগ কোন পদক্ষেপ গ্রহন করেনি। 

পাংশা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ আলী বহিস্কারের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

 

তিনি জানান, পাংশা উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মো. ফরিদ হাসান ওদুদ এর বিরুদ্ধে উপজেলা পরিষদের অধিগ্রহণকৃত জমিতে নির্মিত ১০টি দোকান তার আপন ভাই ও ফুপাতো ভাইয়ের নামে বরাদ্দ দেওয়া। রাজস্ব তহবিল ব্যবহারেরর নির্দেশনা অনুসরণ না করেই গবীর ও মেধাবী শিক্ষার্থীদের পরিবর্তে নিজস্ব লোকের সন্তানদের বৃত্তি প্রদানের মাধ্যমে অর্থ আত্মসাৎ করাসহ বিভিন্ন অনিয়ম প্রমাণিত হওয়ার কারণে স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের উপ-সচিব মোহাম্মদ সামছুল হক স্বাক্ষরিত প্রজ্ঞাপনের মাধ্যমে তাকে বহিস্কার করা হয়েছে।

 

 

 




আপনার মূল্যবান মতামত দিন:


এই বিভাগের জনপ্রিয় খবর
Top